Breaking News
Home / কমলগঞ্জ / “নিজের মেধা ও প্রযুক্তিকে কাজে লাগাতে পারলে, বাড়িতে বসেও ইনকাম সম্ভব-আলী আহমদ

“নিজের মেধা ও প্রযুক্তিকে কাজে লাগাতে পারলে, বাড়িতে বসেও ইনকাম সম্ভব-আলী আহমদ

কমলগঞ্জ বার্তা ডটকমঃ
করোনা ভাইরাসের কারণে স্তব্ধ হয়ে যাওয়া জিবন যাপন আর অলসতায় ভরপুর করে দিয়েছে আমাদের কে।

এই অলসতা থেকে বের হওয়ার উপক্রম খুজছিলাম…..
চলতি বছরের মার্চ মাসে যখন প্রথম ১/২ জন বাংলাদেশী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়, সতর্কতা অবলম্বনে সরকার সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান কিছুদিনের জন্য বন্ধ করে দেয়। এদিকে আমার কলেজ বন্ধ হয়ে যাওয়ার কারনে আমি নিজেও মেস ছেড়ে গ্রামের বাড়িতে চলে আসি। যত দিন যাচ্ছে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়েই চলছিলো প্রতিনিয়ত তার সাথে আমার অলসতাও আর ভালো না লাগাটাও বৃদ্ধি পাচ্ছিলো। শুধু আমি নয় আমার মতো বেশিরভাগ ছাত্ররা বাড়িতে অলসতার মধ্যে সারাক্ষন অনলাইন, গেম, মুভি এসব নিয়েই কাটছিলো দিন।
হঠাৎ একদিন মাথায় একটা বুদ্ধি আসলো, যে সময়টা ফ্রি কাটাচ্ছি এই সময়ে নিজের সামান্য মেধা ও প্রযুক্তি কে কিছু কাজে লাগিয়ে কিছু একটা করা যায় কি না?

আগেই বলে রাখি ছোটবেলা থেকেই আমি টেকনলোজি প্রিয় ছিলাম। এই বয়সে এসে অনলাইনের সৌজন্যে গ্রাফিক্স ডিজাইনে মোটামুটি ভালোই একটা অভিজ্ঞতা হয়েছিলো। এই কাজে ভালোলাগা ও ভালোবাসার কিছু কিছু পরিচিতদের টুকটাক লগো, পোস্টার, ভিডিও ও বিভিন্ন এডিটিং কাজও করে দেই।
তাই ভাবলাম আমার গ্রাফিক্সের অভিজ্ঞতাটাকেই এখন একটু কাজে লাগাই।

যেই ভাবা সেই কাজ, ঈদুল ফিতরের ৫/৬ দিন আগে নিজের একটা ফেইসবুক পেইজ তৈরী করি যার নাম দেই (A2 EDitZ) এবং প্রিয় নুরুল ইসলাম শাহেল ভাইয়ের ফেসবুক আইডি’র টাইমলাইন এ একটা পোস্ট দেওয়াই যে, যাদের ঈদ শুভেচ্ছা ব্যানার লাগবে তারা যোগাযোগ করতে।

পোস্ট দেওয়ার পর পরই ভালো একটি সাড়া পাই অনেক অর্ডার আসে, বন্ধু-বান্ধব, পরিচিত-অপরিচিত কয়েকটি সংগঠন এর কয়েকজন ভাইকে কিছু কাজ করে দেই।
এখানেও একটি অর্জন আছে বেশ কয়েক জন ভাই নিজ থেকে শুভেচ্ছা মূল্য প্রদান করেন যাহা আমি আশাও করি নাই। ফ্রী তেও অনেক কে বানিয়ে দেই । ধীরে ধীরে অনেক কাস্টমার হতে থাকে। এবং কিছু কিছু সংগঠন এর পরিচালকরা একসাথে তাদের সকল সদস্যদের জন্য পোস্টার অর্ডার করেন।
আলহামদুলিল্লাহ,
প্রিয়দের এই সাড়া আমাকে আরো উচ্চাসিত করে তুলেছে।
বিনিময়ের জন্য এরকম কন্টেন্ট ক্রিয়েট না করে নিজের সক্ষমতা কে কাজে লাগানোর উদ্দেশ্য নিয়ে কাজ করা।
তাই আমার স্নেহের অনুজ ও শ্রদ্ধেয় অগ্রজদের কাছে আমার প্রত্যাশা আপনিও বসে না থেকে যেকোনো একটা পথ কে নিজের করে নেন।
প্রাথমিকভাবে সফল না হলেও ধৈর্য্যের পরীক্ষায় পাশ করলে সফলতা আপনার আয়ত্তে থাকবে।
“আসুন নিজের ভিতরের বুদ্ধিমত্বা কে কাজের মাধ্যমে রুপান্তরিত করি।”
একসময়

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

Check Also

কমলগঞ্জে কর্মদক্ষ নারীদের সেলাই মেশিন ও হতদরিদ্র প্রতিবন্ধীদের মাঝে উপহার সামগ্রী বিতরন-কমলগঞ্জ বার্তা

আমিনুল ইসলাম হিমেল ॥ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৫তম জন্মদিন উপলক্ষে মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ পৌরসভার পক্ষ থেকে ...