Breaking News
Home / আন্তর্জাতিক / বিলেতে কমলগঞ্জের শতজন, আলহাজ্জ্ব মাহবুবুল হাসান বক্ত বাচ্চু : যোগ্য পিতার এক সুযোগ্য উত্তরাধিকারী- সৈয়দ মাসুম

বিলেতে কমলগঞ্জের শতজন, আলহাজ্জ্ব মাহবুবুল হাসান বক্ত বাচ্চু : যোগ্য পিতার এক সুযোগ্য উত্তরাধিকারী- সৈয়দ মাসুম

✅গ্রামীণ জনপদ কমলগঞ্জের উন্নয়ন ও অগ্রযাত্রায় কিছু সংখ্যক মানুষ তাঁদের সততা ,ন্যায় নিষ্টতা ,নিরপেক্ষতা ,অন্যায়ের প্রতিবাদে সোচ্চার ও সত্যের পক্ষে দৃঢ় অবস্থানের মাধ্যমে এই অঞ্চলের মানুষকে সঠিক নেতৃত্ব ও দিক নির্দেশনা দিয়েছেন তাঁদের মধ্যে সোনাওর বখত হচ্ছেন একজন।
জনাব আলহাজ্জ্ব সোনাওর বখত যার অন্য নাম ছটই মিয়া তাঁর জন্ম ১৯১৮সালের ১৯মে তৎকালীন সিলেট জেলার ভানুগাছ পরগণাধীন বাল্লারপার গ্রামে।
জনাব বখতের পূর্বপুরুষদের আদি নিবাস মূলত মৌলভীবাজারের কচুয়া গ্রামে।
কচুয়া নিবাসী জনৈক ছটই বখত ও তাঁর স্ত্রী বিবি বখতের ঔরসজাত সন্তান মোহাম্মদ মনসুর বখত সাহেব আনুমানিক অষ্টাদশ শতকের মাঝামাঝি ভানুগাছের ধলাই তীরবর্তী বাল্লাছড়ার (পাহাড়ি নালা লঙ্গু ছড়ার একটি শাখা ) কাছাকাছি বেশ কিছু চাষ যোগ্য জমি কিনে বসতি স্থাপন করেনI
কালক্রমে এই এলাকাটি বাল্লারপার নামে পরিচিত হয়ে উঠে।
মানুষের কল্যাণে যোগ্য নেতৃত্বের ভূমিকা সুদূরপ্রসারী। গ্রামীণ সমাজে তার প্রয়োজন আরও অধিক। ছোট্ট পরিসরে সঠিক চরিত্রবান নেতৃত্বের প্রয়োজন সর্বাধিক। তৃণমূল পর্যায়ে যারা নেতৃত্ব দেয় তাঁরা এই গুণাবলীর সুবাদে গণমানুষের কাছে সুজন ও স্বজনে পরিণত হয়। বাল্লারপার গ্রামের আলহাজ্ব সোনাওর বখত তাঁর মেধা ,চরিত্র ও যোগ্যতা গুণে উঠে আসেন কমলগঞ্জ এলাকার নেতৃস্থানীয় ভূমিকায়। পরিণত হন এলাকার মানুষের একান্ত আপনজনে।
কিশোর বয়সে তিনি সমাজ সেবায় আত্মনিয়োগ করেন। সমাজের অসম আচরণ তাঁর মানসিক যন্ত্রণার কারণ হয়ে দাঁড়ায় যার প্রেক্ষিতে তিনি বাম রাজনীতির সাথে সম্পৃক্ত হয়ে পড়েন। বাংলাদেশ ন্যাশনাল আওয়ামী পার্টির (মোজাফফর ন্যাপ ) তিনি একজন সক্রিয় সদস্য ছিলেন,কমলগঞ্জ থানা ন্যাপের তিনি প্রতিষ্ঠাতা সভাপতিও । একজন সফল ব্যবসায়ী হিসাবে তিনি দীর্ঘ বাইশ বছর ভানুগাছ বাজারের ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন। ভানুগাছের বাজার মসজিদ হচ্ছে বাজারের সবচেয়ে জনবহুল মসজিদ। জনাব সোনাওর বখত ছিলেন ওই মসজিদের আজীবন সভাপতি। একজন বিদ্যানুরাগী হিসাবে কমলগঞ্জ গণমহাবিদ্যালয় ও কমলগঞ্জ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় প্রতিষ্টায় তাঁর ভূমিকা অবিস্মরণীয় হয়ে আছে।
মরহুম মোহাম্মদ সোনাওর বখত ওরফে ছটই মিয়ার পাঁচ পুত্র ও তিন কন্যা সন্তানের মধ্যে সর্বজ্যৈষ্ঠ হচ্ছেন মাহবুবুল হাসান বখত বাচ্চু যার জন্ম নিজ গ্রাম বাল্লারপারে ৩০ ডিসেম্বর ১৯৬৩ইংরেজীতে।
জনাব বাচ্চুর লেখাপড়ার হাতেখড়ি ভানুগাছ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ও কমলগঞ্জ বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ে। লেখা পড়ার পাঠচুকিয়েও এক সময় তাঁকে তাঁর পিতার ব্যবসা দেখাশুনার দায়িত্ব নিতে হয়। রাজনীতি ,সমাজকর্ম আর অন্যদিকে ব্যবসা এই তিনটাকে একই সাথে চালিয়ে নিতে যখন সোনাওর বখত হিমশিম খাচ্ছেন। বয়স ও স্বাস্থ্য প্রতিবন্ধক হয়ে দাঁড়িয়েছে,ঠিক এমনি এক সময় পিতার দায়িত্বের এক বিরাট অংশ নিজ কাঁধে তুলে নেন জনাব মাহবুবুল হাসান বখত বাচ্চু।
জনাব বাচ্চু একসময় বঙ্গবন্ধুর আদর্শে অনুপ্রাণিত হয়ে আওয়ামীলীগের অঙ্গসংগঠন যুবলীগে যোগ দান করেন। এরশাদ বিরোধী আন্দোলনের সময়ে তিনি কমলগঞ্জ ইউনিয়ন যুবলীগের সেক্রেটারীর দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৮৮সালে অধ্যাপক শামসুদ্দিন আহমদের নেতৃত্বে যখন কমলগঞ্জ পাবলিক লাইব্রেরী প্রতিষ্ঠিত হয় জনাব মাহবুবুল হাসান বাচ্চু ছিলেন ওই লাইব্রেরী প্রতিষ্ঠায় অন্যতম এক উদ্যোক্তা।
জনাব বাচ্চু ১৯৯৪সালে ফাঁড়ি জমান ইংল্যান্ডে। ২০০৯ সালে লণ্ডনে প্রতিষ্ঠিত কমলগঞ্জ উপজেলা ওয়েলফেয়ার এসোসিয়েশনের তিনি অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা। সূচনালগ্ন থেকেই তিনি এই প্রতিষ্ঠানের সিনিয়র সহসভাপতি ও বর্তমানে অন্যতম উপদেষ্ঠার দায়িত্বে থেকে দেশে ও বিদেশে কমলগঞ্জবাসীর উন্নয়ন ও অগ্রযাত্রায় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখছেন।ইউকে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি পরিষদের সহ সভাপতিরও দায়িত্বে আছেন।
২০১৩সালে পিতা সোনাওর বখত মারা গেলে পিতা পরিচালিত ভানুগাছ বাজার মসজিদের তিনি দায়িত্ব গ্রহণ করেন এবং অত্যন্ত সফলতার সহিত অদ্যাবদি এই দায়িত্ব পালন করছেন।
যোগ্য পিতার সুযোগ্য উত্তরসূরী জনাব মাহবুবুল হাসান বখত বাচ্চু ব্যক্তি জীবনে বিবাহিত এবং দেশে বিদেশে দায়িত্ব পালন সত্ত্বেও পরিবার পরিজনসহ লণ্ডনে স্থায়ীভাবে বসবাস করছেন।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

Check Also

আউশের বাম্পার ফলনে কমলগঞ্জের কৃষকরা খুশি-কমলগঞ্জ বার্তা

কমলগঞ্জ বার্তা রিপোর্ট ॥ এক সময়ের বৃহত্তর সিলেটের শস্যভান্ডার খ্যাত মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলার প্রতিটি গ্রামে গ্রামে ...