Breaking News
Home / কমলগঞ্জ / বিলেতে কমলগঞ্জের শতজন, মুনমুন নাদিরা রহমান : কমলগঞ্জের ঐতিহ্যবাহী একটি পরিবারের গর্বিত উত্তরাধিকার – সৈয়দ মাসুম

বিলেতে কমলগঞ্জের শতজন, মুনমুন নাদিরা রহমান : কমলগঞ্জের ঐতিহ্যবাহী একটি পরিবারের গর্বিত উত্তরাধিকার – সৈয়দ মাসুম

পাকিস্তান শাসনাধীন সিলেট তথা তৎকালীন পূর্বপাকিস্তানের রাজনৈতিক ও সামাজিক অঙ্গনের অত্যন্ত সুপরিচিত অভিজাত ও ধনাঢ্য এক ঐতিহ্যবাহী দানশীল ও রাজনৈতিক পরিবারের কন্যা প্রচারবিমুখ কর্মজীবী তরুণী মুনমুন নাদিরা রহমান। জন্ম ১৯৮৫ সালের ১৬ নভেম্বর ইংল্যান্ডে। পিতা বিশিষ্ট সমাজসেবী আলহাজ্ব নাজমুর রহমান শাহীন ও মাতা যুক্তরাজ্য প্রবাসী আখতারুনেচ্ছা ডেইজী।
মিসেস রহমান ভিনদেশী কৃষ্টি-সংস্কৃতির এক ভিন্নধর্মী ও বিপরীতমুখী পরিবেশে বসবাস করলেও পারিবারিক নিয়ম-কানুনের মধ্যেই বেড়ে ওঠেন। তিনি পারিবারিক সুশিক্ষা, শিষ্টাচার, ভদ্রতা, নম্রতা, সৌজন্যতাবোধ রপ্ত করে সদালাপী, অমায়িক, সুশিক্ষিত, রুচিশীল ও উদার মন-মানসিকতাসম্পন্ন একজন মানুষ হিসেবে নিজেকে গড়ে তুলতে সক্ষম হন।

উল্লেখ্য যে, মিসেস রহমানের পিতামহ প্রখ্যাত দানশীল ও রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব দানবীর মোঃ মুহিবুর রহমান চেরাগ আলী ছিলেন ১৯৬২সালে নির্বাচিত পাকিস্তান জাতীয় পরিষদের সর্বকনিষ্ঠ সদস্য, কমলগঞ্জ উপজেলা পরিষদের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান,কমলগঞ্জ সদর ইউনিয়নের সবচেয়ে দীর্ঘ কালীন চেয়ারম্যান ও কমলগঞ্জ পৌর সভার আজীবন চেয়ারম্যান। প্রপিতামহ উপমহাদেশের প্রখ্যাত দানশীল ও রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব দানবীর আলহাজ্ব কেরামত আলী (সদস্য, পূর্ব পাকিস্তান প্রাদেশিক পরিষদ১৯৫৪ ও পাকিস্তান জাতীয় পরিষদ১৯৬৫)। এছাড়াও তাঁর পরিবারের একজন উদীয়মান তরুন আইনজীবি মোঃ খালিদ সাইফুল্লাহ্ রহমান যিনি ইতিমধ্যে কবিতা লেখা, ইতিহাসনির্ভর গবেষণা ও সমকালীন বিষয় নিয়ে লেখালেখির কারনে সুধীজনের যথেষ্ট প্রশংসা কুড়িয়েছে।

মিসেস রহমান শিক্ষাজীবনে কৃতিত্বের সাথে ‘ও’ লেভেল ও ‘এ’ লেভেল সম্পন্ন করে যুক্তরাজ্যের কিংস্টন ইউনিভার্সিটি থেকে ২০০৮ সালে ‘বিজনেস উইথ ল’ বিষয়ের উপর ব্যচেলর অব আর্টস (অনার্স) অতঃপর উক্ত বিষয়ের উপর মাস্টার্স কোর্স সম্পন্ন করে প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষাজীবনের ইতি টানেন। । বর্তমানে ‘এডভান্টেজ টেকনিক্যাল রিসোর্চিং’ নামক ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানের ‘একাউন্ট রিসোর্চার ‘ হিসেবে কর্মরত আছেন। এছাড়াও পারিবারিক আদর্শ অনুসরণ করে মানবসেবার মহান ব্রত নিয়ে বিভিন্ন উন্নয়নমূলক, কল্যাণমূলক, সেবামূলক কর্মকাণ্ডে ব্যক্তিগত ও সাংগঠনিকভাবে সম্পৃক্ত থেকে নীরবে নিভৃতে কাজ করে যাচ্ছেন।

মিসেস রহমান সাংসারিক জীবনে যুক্তরাজ্যের বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আলহাজ্ব এনামুর রাজা চৌধুরীর পুত্র যুক্তরাজ্য সরকারের পুলিশ বিভাগে কর্মরত অফিসার মোঃ বাবর হোসেন চৌধুরীর সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন।
ঐতিহ্যবাহী দানশীল ও রাজনৈতিক পরিবারে সোনার চামচ মুখে নিয়ে বেড়ে ওঠা কর্মজীবি তরুণী মিসেস রহমান রাজনৈতিক অঙ্গন থেকে দূরত্ব বজায় রেখে বিলেতের ব্যস্ত ও কর্মমূখী জীবন বেছে নেন এবং আত্মপ্রচারকে আড়ালে রেখে নীরবে নিভৃতে একান্তে পরিবার-পরিজন নিয়েছেন স্থায়ীভাবে যুক্তরাজ্যের হ্যাম্পশায়ার শহরে বসবাস করছেন।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

Check Also

কমলগঞ্জে সমাজসেবা অধিদপ্তর কর্তৃক দুটি চা বাগানে দুই প্রতিবন্ধী গৃহ নির্মাণ কাজের উদ্বোধন

আমিনুল ইসলাম হিমেল ॥ মৌলভীবাজারের কমলগঞ্জ উপজেলা সমাজসেবা অধিদপ্তর কর্তৃক বাস্তবায়নের শমশেরনগর  ও আলীনগর চা বাগানে দুই ...