Breaking News
Home / সভা-সেমিনার / কমলগঞ্জে ৮ দফা দাবিতে ক্যামেলিয়া হাসপাতাল কর্মচারীদের কর্মবিরতি, মানববন্ধন-কমলগঞ্জ বার্তা

কমলগঞ্জে ৮ দফা দাবিতে ক্যামেলিয়া হাসপাতাল কর্মচারীদের কর্মবিরতি, মানববন্ধন-কমলগঞ্জ বার্তা

আমিনুল ইসলাম হিমেল ॥ কমলগঞ্জে সরকারি বিধি মোতাবেক হাসপাতালের সুযোগ-সুবিধা, বাসস্থান, চাকুরী স্থায়ীকরণ ও যথাযথভাবে রেশন প্রদানসহ ৮ দফা দাবিতে ডানকান ব্রাদার্সের ক্যামেলিয়া ফাউন্ডেশন হাসপাতালের কর্মচারীরা কর্মবিরতি পালন করছেন।মঙ্গলবার ৫ ঘন্টার কর্মবিরতির পর বুধবার ২১ অক্টোবর সকাল ৯টা থেকে বিকাল ৫টা পর্যন্ত এই কর্মবিরতি ও মানববন্ধন পালন করেন। জানা যায়, উপজেলার শমশেরনগর এর ফাঁড়ি কানিহাটি চা বাগানে ডানকান ব্রাদার্সের ক্যামেলিয়া ডানকান ফাউন্ডেশন হাসপাতালের  নার্স, ওয়ার্ড বয়, ওয়ার্ড গার্লস, পানিওয়ালা, কিচেন মালী, ক্লিনার, ধোপা, বাবুর্চি ও পাহারদারসহ বিভিন্ন পদে নিয়োজিত কর্মচারীরা বেশ কিছুদিন যাবত কর্তৃপক্ষের কাছে নানা ধরণের সুযোগ সুবিধার দাবি করে আসছেন। এসব দাবির মধ্যে সরকারি বিধি মোতাবেক হাসপাতালের সুযোগ-সুবিধা প্রদান, বাসস্থান, অস্থায়ীদের চাকুরী স্থায়ীকরণ,  সাপ্তাহিক মজুরি ভিত্তিক কর্মচারীদের মাসিক বেতনভূক্ত করা, ৩০ শতাংশের উপর ইনক্রিমেন্ট বর্ধিতকরণ, গ্র্যাচুইটি প্রদান, অস্থায়ী ও স্থায়ী কর্মচারীদের সমান মজুরি ও যথাযথভাবে রেশন-চাপাতা প্রদান সহ ৮ দফা দাবি নামা হাসপাতাল পরিচালক বরাবরে প্রদান করা হয়। দাবি দাওয়া বাস্তবায়ন না হওয়ায় প্রথমে গত ১৫ অক্টোবর থেকে প্রতিদিন ২ ঘন্টা করে কর্মবিরতি পালন করেন কর্মচারীরা। বুধবারের মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন নার্স মেরি রাল্ফ, মুন্না চাষা, রাজু বর্মা, লক্ষিন্দর বৈদ্য, সুদর্শন তেলী প্রমুখ। ক্যামেলিয়া হাসপাতাল কর্মচারী মেরি রালফ, মুন্না চাষা, সুদর্শন সাহা বলেন, বেতন ও সুযোগ সুবিধা পাচ্ছি তা দিয়ে পরিবার চালিয়ে যাওয়া খুবই কষ্টকর। সেজন্য গত বছরের ১৭ অক্টোবর এবং এবছর ১৪ অক্টোবর লিখিতভাবে হাসপাতালের পরিচালক বরাবরে ৮ দফা দাবিনামা প্রেরণ করি। পরে কোন দাবি দাওয়া বাস্তবায়ন না হওয়ায় প্রায় ৭০ জন কর্মচারী বাধ্য হয়ে কর্মবিরতি পালন করছি। ক্যামেলিয়া ডানকান ফাউন্ডেশন হাসপাতালের নার্স, ওয়ার্ড বয়, ওয়ার্ড বালিকাসহ বিভিন্ন পদের আন্দোলনকারীদের দাবিগুলো হচ্ছে  সরকারি হাসপাতালের ন্যায় তাদের বেতন ভাতা ও সুযোগ সুবিধা প্রদান করা, তাদের ইনক্রিমেন্ট ৩০ শতাংশের উপর বর্ধিত করা, তাদের বাসস্থান বরাদ্ধ দেওয়া, তাদের ট্রেড ইউনিয়ন করার সুযোগ প্রদান করা, দুই বছরের অধিক কর্মরতদের চাকুরি স্থায়ী করা, প্রতি মাসে রেশনসহ চা পাতা প্রদান করা, গ্র্যাচুয়েটি প্রদান করা ও অস্থায়ী শ্রমিকের  মজুরি স্থায়ী  শ্রমিকের সমান করা। এ ব্যাপারে জানতে চেয়ে ক্যামেলিয়া হাসপাতালের পরিচালক ডা. আনোয়ারুল হক এর মোবাইল ফোনে কয়েক দফা ফোন দিলেও তিনি ফোন রিসিভ করেননি। উল্লেখ্য, ডানকান ব্রাদার্স এর চা বাগান শ্রমিকদের চিকিৎসায় উপজেলার শমশেরনগর এর ফাঁড়ি কানিহাটি চা বাগানে ক্যামেলিয়া হাসপাতাল নামে একটি মানসম্মত হাসপাতাল স্থাপন করা হয়। এই হাসপাতালে ডানকান ব্রাদার্স এর সকল চা বাগান শ্রমিকরা চিকিৎসা গ্রহণ করছেন।

সংবাদটি ভালো লাগলে শেয়ার করুন

Check Also

মৌলভীবাজারে শ্রদ্ধা ও ভালোবাসায় সাবেক অর্থমন্ত্রী এম সাইফুর রহমানকে স্মরণ

রাফি আহমেদ রিপন, কমলগঞ্জ ।। সাবেক অর্থ ও পরিকল্পনামন্ত্রী, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য এম সাইফুর ...